কুয়াকাটায় সাঁতার কাটতে গিয়ে পর্যটকের মৃত্যু

কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধি
দক্ষিণ বাংলা বুধবার, ২০ জানুয়ারী, ২০২১
কুয়াকাটায় সাঁতার কাটতে গিয়ে পর্যটকের মৃত্যু

পটুয়াখালীর কলাপাড়ার কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতে সাঁতার কাটতে গিয়ে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে এক পর্যটকের মৃত্যু হয়েছে। আজ বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সৈকতের জিড়ো পয়েন্ট সংলগ্ন সৈকতে এ ঘটনা ঘটেছে। নিহত পর্যটকের নাম বাবলু মিয়া(৩২)। সে ঝিনাহদহ সদর থানার ধোপাকাঠা গ্রামের মুসলিম মিয়ার ছেলে। বুধবার সকালে ৫০ জনের একটি টিমের সাথে পিকনিকে কুয়াকাটায় ভ্রমনে আসে নিহত পর্যটক বাবলু।
মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মনিরুজ্জামান জানান, বুধবার সকালে সে পিকনিকে কুয়াকাটায় আসে। সকালে সবার সাথে নাস্তা খেয়ে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সাগরে গোসল করতে যায় কয়েকজনের সঙ্গে। এসময় তার ছবি তুলছিলো অন্য একজন। সাগরে ঢেউয়ের সাথে জাম্প দিয়ে ছবি তুলতে গিয়ে ঢেউয়ের সঙ্গে লাফ দিলে সে ঢেউয়ের নিচে তলিয়ে যায়। তাৎক্ষণিক জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। তাৎক্ষনিক স্থানীয় পর্যটকসহ তার সহযোগীরা তাকে সাগর থেকে তুলে কুয়াকাটা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। তার সাথে পিকনিকে তার ছেলে মাহিমও ছিলো। পেশায় দর্জি বাবলু দুই মাস আগেও নিজ বাসায় বসে অসুস্থ্য হয়ে পড়েছিলেন বলে পরিবারের সাথে কথা বলে ওই পুলিশ কর্মকর্তা জানান।
কুয়াকাটা হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডাঃ মাইনুল হাসান জানান, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে প্রচন্ড ঠান্ডায় হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে সে মারা যেতে পারে। হাসপাতালে আনার আগেই সে মারা যায় বলে জানান।


আরো নিউজ