সর্বশেষ খবর
বাংলাদেশ, শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩

ঢাকা বিমসটেকের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর আঞ্চলিক স্বপ্ন পূরণ চায় : মোমেন

ডেস্ক রিপোর্ট
দক্ষিণ বাংলা শুক্রবার, ২৯ জানুয়ারী, ২০২১
ঢাকা বিমসটেকের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর আঞ্চলিক স্বপ্ন পূরণ চায় : মোমেন

বিমসটেক প্রক্রিয়ার মাধ্যমে বাংলাদেশ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আঞ্চলিক সহযোগিতার স্বপ্ন পূরণ করতে চায় বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু ১৯৭২ সালে এই অঞ্চলের প্রতিবেশীদের সঙ্গে কাজ করার মাধ্যমে দক্ষিণ এশিয়ার জনগণের অর্থনৈতিক ও সামাজিক সমৃদ্ধির স্বপ্ন ব্যক্ত করেছিলেন।

বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) বিমসটেকের নতুন সেক্রেটারি জেনারেল তেনজিন লেকফেলকে স্বাগত জানিয়ে তিনি এসব কথা বলেন। এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি জানিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

বে অব বেঙ্গল ইনিশিয়েটিভ ফর মাল্টি-সেক্টরাল টেকনিক্যাল অ্যান্ড ইকোনমিক কোঅপারেশন (বিমসটেক) বঙ্গোপসাগরের ওপর নির্ভরশীল দক্ষিণ ও দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার সাতটি দেশ- বাংলাদেশ, ভুটান, ভারত, মিয়ানমার, নেপাল, শ্রীলঙ্কা ও থাইল্যান্ডের একটি সংগঠন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু ১৯৭২ সালে এই অঞ্চলের প্রতিবেশীদের সঙ্গে কাজ করার মাধ্যমে দক্ষিণ এশিয়ার জনগণের অর্থনৈতিক ও সামাজিক সমৃদ্ধির স্বপ্ন ব্যক্ত করেছিলেন। তখন থেকে আঞ্চলিক সহযোগিতা বাংলাদেশের সংবিধান ও পররাষ্ট্র নীতির অগ্রাধিকারের একটি অবিচ্ছেদ্য উপাদান হয়ে আছে।

মোমেন বলেন, জাতির পিতার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আঞ্চলিক আন্দোলনের হাতিয়ার হিসাবে বিমসটেক ফোরামের ওপর অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়েছেন, যা ঢাকায় ফোরামের সচিবালয় স্থাপনে প্রতিফলিত হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বিমসটেক সচিবালয়ের নতুন বহুতল আইকনিক ভবন নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ অঞ্চলের বৃহত্তর কল্যাণে পরিবহন সংযোগের জন্য বিমসটেক মাস্টার প্ল্যান বাস্তবায়নের ওপর জোর দেন। তিনি বলেন, আঞ্চলিক সম্ভাবনাকে পুরোপুরি কাজে লাগানোর মাধ্যমে বঙ্গোপসাগর অঞ্চলের জনগণের জন্য দ্রুত সুফল বৃদ্ধির লক্ষ্যে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে বিমসটেক সহযোগিতা বাস্তবায়ন ত্বরান্বিত করতে হবে।

‘বাংলাদেশের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় ও সংস্থাগুলো সহযোগিতার ক্ষেত্র জোরদার করতে এক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় সভা ও অনুষ্ঠান আয়োজন করতে প্রস্তুত।’পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, বিমসটেক অঞ্চলের অর্থনৈতিক উন্নয়নের গতি ত্বরান্বিত করতে সংযোগ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে।


আরো নিউজ